• ঢাকা
  • শুক্রবার, ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং | ৫ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ২০শে মুহাররম, ১৪৪১ হিজরী

বিকাল ৫:৫৭

ভাগ্য বলে কথা, ৯ লাখের ক্যামেরা সাড়ে ৬ হাজারে!


ভাগ্যে থাকলে কী না হয়! ভাগ্যের জোরেই ৯ লাখের ক্যামেরা সরঞ্জাম মাত্র সাড়ে ৬ হাজার টাকায় কিনলেন এক দল ক্রেতা। প্রতি বছরই প্রাইম ডে উপলক্ষ্যে গ্রাহকদের জন্য প্রচুর অফার দেয় আমাজন। এ বছরও ১৫ থেকে ১৬ জুলাই প্রাইম ডে-এর পসরা সাজিয়েছিল ই-কমার্স সংস্থাটি।

গ্রাহকরাও সাইটে ভিড় জমান সস্তায় পছন্দের জিনিস কিনতে। তাই বলে ৯৯.৩% ছাড়? অবিশ্বাস্য হলেও সীমিত সময়ের জন্য এমন অফার দিয়েছে আমাজন। তাই তো অর্ডার ডেলিভারির পরও বিশ্বাস করতে পারছেন না এক দল ক্রেতা।

ভাগ্যবান ক্রেতাদের বেশিরভাগই পেশাদার ক্যামেরাম্যান। ক্যামেরার সরঞ্জামের খোঁজে মাঝে-মধ্যেই ই-কমার্স সাইটগুলি ঘাঁটাঘাঁটি করেন তারা। প্রাইম ডে-এর অফার দেখতে তারা আমাজনের সাইট খুলে দেখেন। সেই সময়েই দেখেন, অবিশ্বাস্য অফার পাওয়া যাচ্ছে ক্যামেরা ও ক্যামেরার সরঞ্জামে। ক্যামেরার সেকশনের প্রায় প্রতিটি ক্যামেরা ও ক্যামেরার সরঞ্জামই পাওয়া যাচ্ছে ৯৪ মার্কিন ডলারে, অর্থাৎ সাড়ে ৬ হাজার টাকায়।

৩০ হাজার টাকার ডিজিটাল ক্যামেরা থেকে ৯ লাখের ক্যামেরা লেন্স, সবই মিলছে পানির দরে। দেরি না করে সঙ্গে সঙ্গে অর্ডার করে দেন অনেকেই। ৯ লাখের Canon EF 800mm f/5.6L IS লেন্স বিক্রি হতে থাকে সাড়ে ৬ টাকায়। সাইটের স্ক্রিনশট তুলে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্টও করেন অনেকে। কিন্তু মাত্র কয়েক মিনিটের জন্যই ছিল এই অফার। ফলে অনেককেই পরে সাইটে ঢুকে নিরাশ হতে হয়।

মনে করা হচ্ছে অফার নয়, আমাজনের প্রযুক্তিগত ত্রুটির ফলেই সব ক্যামেরার দাম একই হয়ে যায়। তার জেরেই এই কাণ্ড। তবে এ বিষয়ে এখনও মুখ খোলেনি আমাজন।

অন্যদিকে, পানির দরে স্বপ্নের ক্যামেরা ও লেন্স পেয়ে এখনও বিশ্বাস করে উঠতে পারছেন না ক্রেতারা। আমাজনের প্রতিষ্ঠাতা জেফ বেজসকে ধন্যবাদ জানাতেও ভুললেন না তারা।

জনৈক ক্রেতা লিখলেন, ‘লেন্সটি কেনা আমার অনেক দিনের স্বপ্ন ছিল। স্বপ্ন পূরণের জন্য জেফ বেজসকে ধন্যবাদ।’