• ঢাকা
  • সোমবার, ৬ই জুলাই, ২০২০ ইং | ২২শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ১৪ই জিলক্বদ, ১৪৪১ হিজরী

বিকাল ৩:১১

প্রথমবারের মতো জাতীয় দলে খেলবে মানিক হোসেন


জাতির জনক শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে ‘মুজিববর্ষে’ বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) আয়োজন করতে যাচ্ছে বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট। আগামী ১৫ই জানুয়ারি বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে শুরু হচ্ছে জমজমাট এই টুর্নামেন্ট। চলবে ২৫শে জানুয়ারি পর্যন্ত। ৬ জাতির বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক গোল্ডকাপের এবারের আসরের গ্রুপ পর্বে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ফিলিস্তিনকে মোকাবিলা করবে স্বাগতিক বাংলাদেশ। শক্তিশালী এই দলের পাশাপাশি গ্রুপ ‘এ’তে বাংলাদেশের আরেক প্রতিপক্ষ শ্রীলঙ্কা। এই আসরকে সামনে রেখে গতকাল ঘোষণা করা হয় বাংলাদেশ দল।  ইনজুরি কাটিয়ে দলে ফিরছেন ডিফেন্ডার তপু বর্মণ। প্রথমবারের মতো জাতীয় দলে ডাক পেয়েছেন চট্টগ্রাম আবাহনীর উইংগার মানিক হোসেন মোল্লা। এ দুজনকে জায়গা দিতে গিয়ে বাদ পড়েছেন বিপলু আহমেদ ও ইয়াসিন আরাফাত।

আজ বিকালেই জাতীয় দলের ফুটবলাররা রিপোর্ট করবেন স্থানীয় একটি হোটেলে। পরদিনই শুরু হবে বাংলাদেশ ফুটবল দলের আনুষ্ঠানিক প্রস্তুতি।
সবশেষ ২০১৮ সালে ফিলিস্তিনের সঙ্গে সেমিফাইনালে মুখোমুখি হয়েছিল বাংলাদেশ। স্বাগতিকদের ২-০ গোলে হারিয়ে ফাইনালে যাওয়া ফিলিস্তিন শিরোপা জিতে নিয়েছিল তাজিকিস্তানকে টাইব্রেকে হারিয়ে। এবারের আসরে তাজিকিস্তানকে দেখা যাবে না। ৬ দলের মধ্যে ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে সবচেয়ে এগিয়ে ফিলিস্তিন, মধ্যপ্রাচ্যের এই দেশটির র‌্যাঙ্কিং ১০৬। বুরুন্ডির র‌্যাঙ্কিং ১৫১ ও মরিশাস আছে ১৭২ নম্বরে। স্বাগতিক বাংলাদেশের র‌্যাঙ্কিং ১৮৭। এ টুর্নামেন্টে বাংলাদেশের টার্গেট সেমিফাইনাল বলে জানিয়েছেন ইনজুরি কাটিয়ে দলে ফেরা ডিফেন্ডার তপু বর্মণ। টুর্নামেন্ট নিয়ে তপু বলেন, ফিলিস্তিন অনেক শক্তিশালী দল। তাদের সঙ্গে পারাটা কঠিন। তবে শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে প্রথমে আমরা সেমিফাইনাল নিশ্চিত করতে চাই। জানা গেছে, ইনজুরির কারণে বাদ পড়ছেন বিপলু আহমেদ। পারফরম্যান্সের কারণে বাদ পড়েছেন ইয়াসিন আরাফাত। অনেকদিন পর ইনজুরি কাটিয়ে জাতীয় দলে ফিরছেন দেশের অন্যতম সেরা ডিফেন্ডার তপু বর্মন। দল নিয়ে হেড কোচ জেমি ডে বলেন, ‘এই দলটা দীর্ঘদিন ধরে একসঙ্গে খেলছে। বিশ্বকাপ বাছাই পর্বেও আমি এই দলটাকে ধরে রাখতে চাই। এ কারণে দলে খুব পরিবর্তন করিনি।’ ছুটি কাটিয়ে আজ ঢাকায় ফেরার কথা জেমি ডে’র।

বাংলাদেশ দল
গোলরক্ষক : আনিসুর রহমান জিকো, শহীদুল আলম সোহেল ও আশরাফুল ইসলাম রানা।
ডিফেন্ডার : তপু বর্মন, ইয়াসিন খান, সুশান্ত ত্রিপুরা, রায়হান হাসান, টুটুল হোসেন বাদশা, রিয়াদুল হাসান ও রহমত মিয়া।
মধ্যমাঠ : রবিউল হাসান, সাদ উদ্দিন, মামুনুল ইসলাম মামুন, সোহেল রানা, জামাল ভূঁইয়া ও মানিক হোসেন মোল্লা।
ফরোয়ার্ড : মাহবুবুর রহমান সুফিল, তৌহিদুল আলম সবুজ, মতিন মিয়া, মোহাম্মদ ইব্রাহিম, নাবিব নেওয়াজ জীবন, আরিফুর রহমান ও রাকিব হোসেন।