• ঢাকা
  • সোমবার, ২১শে অক্টোবর, ২০১৯ ইং | ৬ই কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ২১শে সফর, ১৪৪১ হিজরী

রাত ৯:৫৩

‘নেশাগ্রস্থ’ দীপিকা-রণবীর


বিনোদন ডেস্ক : বন্ধুদের জন্য বাড়িতে ঘরোয়া পার্টির আয়োজন করেছিলেন বলিউড পরিচালক করণ জোহর। দীপিকা পাড়ুকোন থেকে রণবীর কাপুর, ভিকি কৌশল থেকে বরুণ ধাওয়ান, বলিউডের একঝাঁক তারকা উপস্থিত হন সেই পার্টিতে। কিন্তু সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই পার্টির ভিডিও ভাইরালে তুঙ্গে বিতর্ক।

সেলিব্রেটিদের এমন পার্টি প্রকাশ্যে আসতেই করণকে একহাত নিয়েছেন শিরোমণি আকালি দলের বিধায়ক মজিন্দর শিরসা। পার্টি নিয়ে কোথায় আপত্তি? বিধায়কের দাবি, নেটদুনিয়ায় করণ জোহর যে ভিডিওটি পোস্ট করেছেন সেখানে স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে প্রথমসারির সেলিব্রেটিরা সবাই নেশাগ্রস্থ। মাদক সেবন করে ক্যামেরার সামনে পোজ দিয়েছেন তারা। বলিউডের এই তারকারা প্রত্যেকেই পাবলিক ফিগার। তাই তাদের এমন নেশাগ্রস্থ অবস্থায় ক্যামেরার সামনে আসা উচিত নয় বলে দাবি তার।

এর ফলে অগণিত ভক্তদের কাছে খারাপ বার্তাই পৌঁছেছে। টুইটারে তিনি লিখেছেন, ‘অবাস্তব বনাম বাস্তব। দেখুন কিভাবে বলিউড তারকারা গর্বের সঙ্গে নিজেদের নেশাগ্রস্থ অবস্থায় তুলে ধরেছেন। মাদক সেবনের বিরুদ্ধে আমি সরব হলাম। আপনারাও যদি শাহিদ কাপুর, দীপিকা পাড়ুকোন, অর্জুন কাপুর, বরুণ ধাওয়ান, করণ জোহর, ভিকি কৌশলকে দেখে বিরক্ত হয়ে থাকেন, তাহলে রিটুইট করুন।’

যদিও সব অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে করণদের পাশে দাঁড়িয়েছেন কংগ্রেস নেতা মিলিন্দ দেওরা। বিধায়ককে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, ‘সেই সন্ধ্যায় আমার স্ত্রীও পার্টিতে ছিল। কেউই মাদক সেবন করেননি। তাই মিথ্যে গুজব ছড়ানো বন্ধ করুন। যাদের আপনি চেনেন না, তাদের ভাবমূর্তি নষ্ট করারও চেষ্টা করবেন না। আমার মনে হয়, এ বিষয়ে আপনার নিঃশর্ত ক্ষমা চাওয়ার সাহস দেখানো উচিত।’

ভিডিওটি নিয়ে নেটিজেনদের অনেকের দাবি, ‘দেখে মনে হচ্ছে সামান্য একটা মদের পার্টি।’ অনেকে আবার বিধায়কের সুরে সুর মিলিয়ে সেলিব্রেটিদের নিন্দা করেছেন। তবে আরও একটা বিষয় নজর কেড়েছে নেটিজেনদের। পার্টিতে দীপিকা থাকলেও ছিলেন না রণবীর সিং। এদিকে রণবীর কাপুরের পাশে দেখা যায়নি বান্ধবী আলিয়া ভাটকেও। জানা গেছে, নিজের শুটিংয়ে ব্যস্ত তারা।