• ঢাকা
  • সোমবার, ৬ই জুলাই, ২০২০ ইং | ২২শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ১৪ই জিলক্বদ, ১৪৪১ হিজরী

সকাল ৯:৩৭

জিম্বাবুয়েকে ২৬৫ রানে গুটিয়ে দিলেন তাইজুল


স্পোর্টস ডেস্কঃ মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে জিম্বাবুয়ে বিপক্ষে একমাত্র টেস্টের দ্বিতীয় দিন ব্যাট করছে বাংলাদেশ।

২৬৫ রানে শেষ জিম্বাবুয়ে
 
পাঁচ উইকেট হলো না আবু জায়েদ চৌধুরী কিংবা নাঈম হাসানের। আক্রমণে ফিরে রেজিস চাকাভাকে ফিরিয়ে জিম্বাবুয়েকে ২৬৫ রানে গুটিয়ে দিলেন তাইজুল ইসলাম।
 
বাঁহাতি স্পিনারকে ছক্কায় ওড়াতে চেয়েছিলেন চাকাভা। টাইমিং করতে পারেননি জিম্বাবুয়ের কিপার-ব্যাটসম্যান। অনেক ওপরে উঠে যাওয়া ক্যাচ মুঠোয় জমান নাঈম। ইনিংসে এটি তার তৃতীয় ক্যাচ। তিন চারে ৭৪ বলে ৩০ রান করেন চাকাভা।
 
দ্বিতীয় দিন সকালে এক ঘন্টা ২০ মিনিট স্থায়ী হয় জিম্বাবুয়ের ইনিংস। দলটি যোগ করে ৩৭ রান।
 
আট ওভারের স্পেলে ২ উইকেট নিয়েছেন আবু জায়েদ। ইনিংসে ৭১ রানে চারটি। টেস্টে এটিই তার ইনিংসে সেরা বোলিং। আগের সেরা ছিল ৪/১০৮। এদিন দুটি উইকেট নিয়েছেন তাইজুল। অফ স্পিনার নাঈম ৭০ রানে নিয়েছেন চারটি।  
 
সংক্ষিপ্ত স্কোর:
 
জিম্বাবুয়ে ১ম ইনিংস: (আগের দিন ২২৮/৬) ১০৬.৩ ওভারে ২৬৫ (চাকাভা ৩০, টিরিপানো ৮, এনডিলোভু ০, টিশুমা ০, নিয়াউচি ৬*; ইবাদত ১৭-৮-২৬-০, আবু জায়েদ ২৪-৬-৭১-৪, নাঈম ৩৮-৮-৭০-৪, তাইজুল ২৭.৩-১-৯০-২)

অবশেষে তাইজুলের উইকেট
 
আগের দিনের অনুজ্জ্বল তাইজুল ইসলামকে সকাল থেকে এক প্রান্তে রেখেছেন মুমিনুল হক। বাংলাদেশ অধিনায়ককে আস্থার প্রতিদান দিলেন তাইজুল। রানের খাতা খোলার আগেই ফেরালেন অভিষিক্ত চার্ল্টন টিশুমাকে।
 
টার্ন আশা করে খেলেছিলেন টিশুমা। স্টাম্পে থাকা বল ততটা টার্ন করেনি। বল আঘাত হানে প্যাডে, এলবিডব্লিউ হয়ে ফিরে যান জিম্বাবুয়ের ১০ নম্বর ব্যাটসম্যান।
 
১০০ ওভারে জিম্বাবুয়ের স্কোর ২৪৫/৯। ক্রিজে রেজিস চাকাভার সঙ্গী ভিক্টর নিয়াউচি।

আবু জায়েদের চতুর্থ শিকার এনডিলোভু
 
টানা দুই ওভারে উইকেট পেলেন আবু জায়েদ চৌধুরী। ডোনাল্ড টিরিপানোর পর বিদায় করলেন আইন্সলে এনডিলোভুকে।
 
স্টাম্পে থাকা ফুল লেংথ বল ফ্লিক করতে চেয়ে ব্যাটে খেলতে পারেননি জিম্বাবুয়ের নয় নম্বর ব্যাটসম্যান। এলবিডব্লিউর জোরালো আবেদনে আম্পায়ার সাড়া দিলে রিভিউ না নিয়ে ফিরে যান এনডিলোভু। চতুর্থ উইকেট পেলেন আবু জায়েদ।
 
৬ বলে শূন্য রানে ফিরেন এনডিলোভু। ৯৯ ওভারে জিম্বাবুয়ের স্কোর ২৪৪/৮। ক্রিজে রেজিচ চাকাভার সঙ্গী চার্ল্টন টিশুমা।

শুরুতেই আবু জায়েদের আঘাত

দারুণ বোলিং করে যাওয়ার পুরস্কারটা দ্রুতই পেলেন আবু জায়েদ চৌধুরী। ডোনাল্ড টিরিপানোকে কট বিহাইন্ড করে নিলেন নিজের তৃতীয় উইকেট।

আবু জায়েদের আগের ওভারে ব্যাটের কানায় লেগে ফাঁকা তৃতীয় স্লিপ দিয়ে বাউন্ডারি পেয়েছিলেন টিরিপানো। এবারও ড্রাইভ করেছিলেন, সুইংয়ের জন্য ঠিক মতো খেলতে পারেননি। ব্যাটের কানা ছুঁয়ে ক্যাচ জমা পড়ে লিটন দাসের গ্লাভসে।

দুই চারে ৩১ বলে ৮ রান করেন টিরিপানো। ৯৭ ওভারে জিম্বাবুয়ের স্কোর ২৪০/৭। ক্রিজে রেজিস চাকাভার সঙ্গী আইন্সলে এনডিলোভু।

তিনশর নিচে থামাতে পারবে বাংলাদেশ?
 
জিম্বাবুয়েকে যত দ্রুত সম্ভব গুটিয়ে দেওয়ার লক্ষ্য নিয়ে মিরপুর টেস্টের দ্বিতীয় দিন মাঠে নেমেছে বাংলাদেশ। অন্য দিকে অন্তত প্রথম সেশন খেলার লক্ষ্য জিম্বাবুয়ের।
 
৬ উইকেটে ২২৮ রান নিয়ে প্রথম দিন শেষ করেছে জিম্বাবুয়ে। ক্রিজে রেজিস চাকাভার সঙ্গী ডোনাল্ড টিরিপানো। সফরকারীদের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক ক্রেইগ আরভিনের আশা, নিজের ইনিংস দ্বিতীয় সেশনে নিয়ে যান চাকাভা-টিরিপানো।
 
যত দ্রুত সম্ভব জিম্বাবুয়ের প্রথম ইনিংস গুটিয়ে দিতে চায় বাংলাদেশ। প্রথম দিন চার উইকেট নেওয়া নাঈম হাসান আত্মবিশ্বাসী, সফরকারীদের লোয়ার অর্ডার দ্রুতই গুটিয়ে দিতে পারবেন তারা। বাংলাদেশ কী পারবে তিনশ রানের নিচে সফরকারীদের থামাতে?  
 
প্রথম দিন শেষে সংক্ষিপ্ত স্কোর:
 
জিম্বাবুয়ে ১ম ইনিংস: ৯০ ওভারে ২২৮/৬ (মাসভাউরে ৬৪, কাসুজা ২, আরভিন ১০৭, টেইলর ১০, রাজা ১৮, মারুমা ৭, চাকাভা ৯*, টিরিপানো ০*; ইবাদত ১৭-৮-২৬-০, আবু জায়েদ ১৬-৪-৫১-২, নাঈম ৩৬-৮-৬৮-৪, তাইজুল ২১-১-৭৫-০)।