• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ১৯শে নভেম্বর, ২০১৯ ইং | ৪ঠা অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ২০শে রবিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরী

ভোর ৫:৫৬

কান নিয়েছে চিলে!


গুজব রটানোর কবিতাটা মনে আছে না—ওই যে, শামসুর রাহমানের ‘পণ্ডশ্রম’? কান নাকি চিল নিয়ে গেছে, চিলকে ঢিল মেরে আকাশ থেকে নামাবে সবাই মিলে! শেষমেশ ছোট্ট ছেলে বলল, কান রয়েছে কানের জায়গাতেই।

বিগত কিছুদিন ধরে বশেমুরবিপ্রবির ভিসি মহোদয় এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন নিয়ে কান নিয়েছে চিলে! এমন একটা ধারাবাহিকতায় কিছু জাতীয় পত্র-পত্রিকা, অনলাইন নিউজ পোর্টাল গুলোর যাচ্ছেতাই মন্তব্য শিক্ষা ব্যবস্থায় বিদ্রুপ প্রভাব ফেলার শামিল।

বেশকিছু সম্পাদকীয় কলামে তাদের বিরাট শিক্ষানীতি জাহির করেছেন, সর্বোপরি তা কাম্য নয়। কেউ কেউ আবার এমন মন্তব্য করতেও দ্বিধা করেন নি যে মন্তব্যের ফলে সামাজিক দৃষ্টিতে মানহানি হয়েছে, কতটা মানবিক হলে এখন পর্যন্ত তিনি মানহানীর মামলা দায়ের করেন নি।

যারা ভেতরের দিকটা না দিকে মনখুশি মতো নিজের ফলোয়ার বাড়াতে এমন করছেন তাদের উদ্দেশ্যে আন্তরিকভাবে আহবান থাকবে, বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫ কর্ম দিবস এখানে থেকে খেয়ে দেখে যান যাকে নিয়ে কলাম বড় করছেন তিনি সাধারণ ছাত্র ছাত্রীদের নিয়ে কতটুকু ভাবেন, কি করেন…!

লেখক:- মোঃ আশরাফুল আলম ( পিয়াস )

শিক্ষার্থী – ইইই বিভাগ,বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, গোপালগঞ্জ।